সরকার বন্যা কবলিত মানুষের সাথে রসিকতা করছে: মান্না

বুধবার ২২ জুন ২০২২ ১৯:৫২


:: এইচ এম আল-আমিন ::

সিলেট-সুনামগঞ্জসহ বন্যাকবলিত মানুষের সঙ্গে সরকার রসিকতা করছে বলে মন্তব্য করেছেন নাগরিক ঐক্যের সভাপতি মাহমুদুর রহমান মান্না।

তিনি বলেছেন, সিলেট-সুনামগঞ্জসহ বন্যাকবলিত এলাকার মানুষের সঙ্গে সরকার যে রসিকতা শুরু করেছে, এটা খুবই দুঃখ জনক। যেখানে কোটি মানুষ বন্যায় অবহেলিত সেখানে কীভাবে সরকার ৬০ লাখ টাকা বরাদ্দ দিতে পারে। এর থেকে বেশি টাকা তো বিভিন্ন রাজনৈতিক দল, সামাজিক সংগঠন দিচ্ছে।

বুধবার (২২ জুন) সকালে জাতীয় প্রেস ক্লাবে ‘নির্বাচনকালীন নির্দলীয় সরকারের প্রয়োজনীয়তা নাগরিক ভাবনা’ শীর্ষক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন। ‘ভয়েস ফর ডেমোক্রেসি অ্যান্ড ভোটার রাইটস’ আয়োজিত এ সভায় সভাপতিত্ব করেন সংগঠনের সদস্য সচিব হুমায়ুন কবির বেপারী।

মান্না বলেন, সুষ্ঠু অবাধ নির্বাচনের জন্য নির্দলীয় সরকারের বিকল্প নেই। নির্দলীয় বুঝি না, নির্বাচনকালীন এমন একটি সরকার থাকবে যেই সরকার স্বাধীনভাবে সব জায়গায় ক্ষমতা প্রয়োগ করতে পারবে। শুধু তাই নয়, অতীতেও ফখরুদ্দীন ও মঈনুদ্দিন সরকার তিন মাসের কথা বলে দুই বছর সময় ক্ষেপণ করে একটি নতজানু নির্বাচন কমিশনের মাধ্যমে নির্বাচন করেছিল।

তিনি বলেন, আগামীতে যেন এরকম কোনো ঘটনা না ঘটে সেই জন্য গ্রহণযোগ্য ব্যক্তিদের দিয়ে নির্বাচনকালীন সরকার গঠন করতে হবে। তাহলেই একটি অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন করতে সক্ষম হবে।

নাগরিক ঐক্যের সভাপতি বলেন, সরকার পদ্মা সেতু উদ্বোধনের নামে যেভাবে ঢাকঢোল পিটিয়ে ভারতীয় শিল্পীদের দেশে এনে নাচ-গানের চিন্তা করছে, এগুলোর জন্য একদিন জবাবদিহিতা করতে হবে।

সরকারের উদ্দেশে তিনি বলেন, অবিলম্বে মানুষের মুখের ভাষা বোঝার চেষ্টা করুন, অন্যথায় পরিণতি হবে ভয়াবহতা।

সভায় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট আহমেদ আজম খান, বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য আবু নাছের মোহাম্মদ রহমাতুল্লাহ, জাতীয়তাবাদী তাঁতি দল, কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম আহ্বায়ক ড. কাজী মনিরুজ্জামান মনির, শাজাহান মিয়া সম্রাট, সাংস্কৃতিক দলের সহ-সভাপতি তাজুল ইসলাম সেলিম, বাকের হোসেন প্রমুখ।

এমএসি/আরএইচ